একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী, টিকেট ও ভাড়ার তালিকা

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি উত্তরবঙ্গের বিলাসবহুল ও আধুনিক আন্তঃনগর ট্রেন গুলোর মধ্যে একটি। এই ট্রেনটি বাংলাদেশের সীমান্তবর্তী জেলা পঞ্চগড় রেলওয়ে স্টেশন থেকে ঢাকা কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনের যাত্রী পরিষেবা দিয়ে আসছে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি তে ১ হাজার 200 যাত্রী বহন করতে সক্ষম। এছাড়াও ট্রেনটিতে সর্বোচ্চ সংখ্যা মোট 12 টি বগি রয়েছে। এ গুগল এগুলোর মধ্যে এসি ও ননএসি বগি রয়েছে। এছাড়াও একতা এক্সপ্রেস এর বিশেষত্ব একটি গুণ হলো এই ট্রেনটি অনেক দ্রুতগামী ট্রেন। এছাড়াও এর একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি বাংলাদেশের বিলাসবহুল ট্রেন গুলোর মধ্যে একটি।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি সর্বপ্রথম বাংলাদেশ রেলওয়ে ১৯৮৬ সালে উত্তরবঙ্গের জেলা দিনাজপুর থেকে ঢাকা রাজধানী কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন পর্যন্ত চলাচল করত। পরবর্তীতে ট্রেনটি সীমান্তবর্তী জেলা পঞ্চগড় থেকে ঢাকা চলাচল করে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি তে আপনি ভ্রমণ করার সময় নিরাপদ এবং ঝুঁকিমুক্ত ভ্রমণ করতে পারবেন। কারণ এটি আধুনিক প্রযুক্তি দিয়ে তৈরি একটি ট্রেন।

আপনি যদি একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটির সময়সূচী, টিকিটের ভাড়া, এবং ট্রেনটি যাত্রার পথে যেসব স্টেশনে বিরতি নিয়ে থাকে। সেইসব সম্পর্কে জানতে চাইলে আমাদের ওয়েবসাইটের এই প্রশ্নের মাধ্যমে আপনি সম্পূর্ণ তথ্য পেয়ে যাবেন। তাই আমাদের এই নিবন্ধটির পোস্টটি প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত চোখ রাখুন।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী

আপনাদের জানিয়ে রাখি একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি সাপ্তাহিক ছুটির দিন নেই। তাই ওই ট্রেনটি সপ্তাহে 7 দিন দিনাজপুর থেকে রাজধানী ঢাকা কমলাপুর রেলস্টেশনে নিয়মিত যাতায়াত করে থাকে। দিনাজপুর থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি ছেড়ে যায় সকাল ১০:১০ মিনিটে। এবং কমলাপুর রেলস্টেশনে পৌঁছায় হাজার ১৯:০০ মিনিটে।

ট্রেন নম্বর ট্রেনের রুট সময় শুরু আগমনের সময়
705 ঢাকা থেকে পঞ্চগড়ে 09:50 এএম 07:00 PM
706 দিনাজপুর থেকে ঢাকা 09:10 PM 06: 30 এএম

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের বিরতি স্টেশন  সময়সূচী

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি বিভিন্ন জেলার উপর দিয়ে যাত্রা করে থাকে যেহেতু। তাই বিভিন্ন জেলার স্টেশনগুলোতে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি বিরতি নিয়ে থাকে। আপনি যদি একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটির যেসব স্টেশনে বিরতি নিয়ে থাকে। সেই স্টেশনগুলোর সময়সূচী এবং স্টেশনগুলোর কতক্ষণ বিরতি নিয়ে থাকে সেই সময় জানতে চাইলে আমাদের নিচের টেবিল বক্সে চোখ রাখুন।

বিরতি স্টেশন নাম ঢাকা থেকে (৭০৫) দিনাজপুর থেকে (৭০৬)
বিমান বন্দর ১০ঃ৩৭ ০৭ঃ২৫
জয়দেব পুর ১১ঃ০৫ ০৬ঃ৫০
টাঙ্গাইল ১২ঃ০৫ ০৫ঃ৪৬
বি-বি-পৃর্ব ১২ঃ২৭ ০৫ঃ২৪
শহীদ এম মনসুর আলী ১৩ঃ০৪
ঈশ্বরদী ১৪ঃ২০
নাটোর ১৫ঃ১০ ০৩ঃ১২
সান্তাহার ১৬ঃ০০ ০২ঃ১০
আক্কেলপুর ১৬ঃ২৫ ০১ঃ৩৫
জয়পুরহাট ১৬ঃ৫৩ ০১ঃ১৮
পাঁচবিবি ১৭ঃ০৬ ০১ঃ০৬
বিরামপুর ১৭ঃ৩৬ ০০ঃ৪২
ফুলবাড়িয়া ১৭ঃ৫০ ০০ঃ২৮
পার্বতীপুর ১৮ঃ১৫ ২৩ঃ৫০
চিরিরবন্দর ১৮ঃ১৪ ২৩ঃ২৯
দিনাজপুর ১৯ঃ০০ ২৩ঃ০৪
সেতাবগঞ্জ ১৯ঃ৩৫ ২২ঃ৩২
পীরগঞ্জ ১৯ঃ৫১ ২২ঃ১৬
ঠাকুরগাঁও ২০ঃ১৫ ২১ঃ৫১
রুহিয়া ২০ঃ৩৩ ২১ঃ৩৪
কিস্মত ২০ঃ৪০ ২১ঃ২৫

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের ভাড়ার তালিকা

বাংলাদেশ রেলওয়ে কর্তৃক সকল ট্রেনের ভাড়া নির্ধারিত করা হয়। এক্ষেত্রে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি যেহেতু বিলাসবহুল আরামদায়ক এবং আধুনিক একটি ট্রেন। সেহেতু এই ট্রেনটিতে টিকিটের মূল্য নির্ধারিত করা হয়েছে চারটি ভাগে।
১. শোভন চেয়ার
২. শোভন চেয়ার
৩. প্রথম বার্থ
৪. এসি বার্থ
এই চারটি ভাগে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকিটের মূল্য নির্ধারিত করা হয়েছে বিভিন্ন দূরত্ব অনুযায়ী।

স্টেশনের নাম শোভন চেয়ার শোভন চেয়ার প্রথম বার্থ এসি বার্থ
দিনাজপুর ৩৬০ ৪৬০ ৮৫৫ ১২৮৫
ফুলবাড়ি ৩৩০ ৩৯৫ ৭৮৫ ১১৭৫
বিরামপুর ৩২০ ৩৮৫ ৭৬৫ ১১৫০
পাঁচবিবি ৩০৫ ৩৬৫ ৭৩০ ১১৯৫
জয়পুরহাট ৩০০ ৩৬০ ৭১৫ ১০৭০
আক্কেলপুর ২৯০ ৩৪৫ ৬৯০ ১০৩৫
সান্তাহার ২৭৫ ৩৩০ ৬৬০ ৯৯০
বি-বি-পৃর্ব ১০৫ ১২৫ ২৫০ ৩৭৫
টাঙ্গাইল ৯০ ১০৫ ২১০ ৩১৫

সুতরাং আপনারা একতা এক্সপ্রেস ভ্রমণ করার সময় এর ট্রেনটিতে সকল প্রকার সুযোগ সুবিধা উপভোগ করতে পারবেন। এবং একটি আরামদায়ক ভ্রমণ করতে পারবেন। আশাকরি একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটির সকল তথ্য আপনাদের দিতে পেরেছি। ট্রেনটি সম্পর্কে আপনার অজানা কিছু থাকলে। আমাদের ওয়েবসাইটে নিচে একটি কমেন্ট বক্স দেয়া আছে এই কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করুন ধন্যবাদ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button